বিবা’হিত না’রীদের পটানোর ৭ গোঁ’পন কৌ’শল!

আমাদের চারপাশে কিছু মা'নুষ আ'ছে যারা বেশ বাকপটু। অ'ফিসের ক'লিগ, পাশের বাসার ভাবি কিংবা ব’ন্ধুর স্ত্রীদের প্রশংসায় মুগ্ধ করে তোলেন। মনে হতে পারে এগুলো শুধুই প্রশংসাবাক্য। কিন্তু এর গ’ভীরে লুকিয়ে থাকে অসৎ উদ্দেশ্য।

১. ভাবি, আ'পনি দুই বাচ্চার মা! আ'পনাকে দেখলে কেউ বি'শ্বা’সই করবে না। দে'খে মনে হয়, মাত্র ই’ন্টারপাস করছেন! সিরিয়াসলি! – এ ক'থা শুনে ভাবি তো আ'হলাদে আট দু’গুণে ষোলখানা। একটু ল'জ্জা পেয়ে ভাবি ব'লেন, সেই স'ময় কি আর আ'ছে, ব’য়স হয়েছে না!

২. আ'পু, একটা ক'থা বলবো অনেকদিন থেকে ভাবছি! কিন্তু হ্যাজিটেশন করে বলা হচ্ছে না। আ'পনি এমনিতেই সুন্দর। কিন্তু নাকের পাশের তিলটা আ'পনাকে একদ'ম প'রী বানিয়ে দিছে। এত্ত সুন্দর। জাস্ট অসা'ধা'রণ লাগে! – আ'পু তো শুনে একদ'ম কাত। ব'লেন, ‘অ্যাঁ সত্যি বলছেন।

৩. মন খা’রাপ কেন ভাবি? ভাইয়া ঝ’গড়া-টগড়া করলো নাকি? আ'পনার মতো এরকম একটা মা'নুষের সা'থেও ঝ’গড়া করা যায়? বি'শ্বা’সই হচ্ছে না! ভাবি দীর্ঘশ্বা’স ছে’ড়ে ব'লেন, ‘বইলেন না, আ'পনার ভাই কো’নোদিন বোঝার চেষ্টাই করলো না।

৪. একটা ক'থা বলি, কিছু মনে করবেন না তো? আ'পনার কণ্ঠটা এত্ত সুন্দর! কো’নো প্রিয় গান বারবার শুনলেও যেমন বি'র’ক্তি লাগে না, আ'পনার ক'থা’বা র্তার স্টাইলও এরকম। টানা ২৪ ঘণ্টা শুনলেও বোরিং লাগবে না!

এক'থা শুনে সুন্দর কণ্ঠওয়ালী তো আবে'গে গদ গদ। ব'লেন, অ্যাঁ সত্যি বলছেন ভাই? এই শুনছো ( স্বা’মীকে উদ্দেশ্য করে), দেখো কি বলছে। তুমি বুঝলা না আমাকে।

৫. আ'পনি যা ই’চ্ছা মনে ক’রতে পারেন, আজ থেকে আ'পনাকে আর আন্টি ডাকবো না, ব'লে দিচ্ছি। হুঁ! দেখলে মনে হয় আবার বি'য়ে দেয়া যাবে, আর আ'পনাকে ডাকবো আন্টি? নাহ, আর নাহ! আন্টিতো স্কুলপড়ুয়া মে’য়ে হয়ে যান। ব'লেন, ‘যা , আমা’রতো ল'জ্জা লাগছে। এভাবে কেউতো কখনো ব'লেনি, তাই!

৬. একটা ক'থা বলবো? নীল শাড়িতে আ'পনাকে দারুণ মা'নাইছে!…না না, তেল দিচ্ছি না, সত্যি বলছি! সত্যি অনেকটা কোয়েল মল্লিকের মতো লাগে আ'পনাকে! -শুনে একেবারে ভিজে গে’লেন। হাসতে হাসতে ব'লেন, ‘আ'পনার মুখে ফুল চন্দন পড়ুক।’ ৭. জ’ন্ম’দিনে কী কী করলেন আ'পনারা? কি? ভাইয়ার অ'ফিস?….কি যে ব'লেন! আমি এরকম একটা বউ পেলে জ’ন্ম’দিন উপলক্ষ্যে এক সপ্তাহের ছুটি নিতাম!…হা'ইসেন না, সিরিয়াসলি! -শুনে তো থ। চোখ কপালে উঠে গেল। ধীরে ধীরে দীর্ঘশ্বা’স ছে’ড়ে বললেন, ‘আমা’র ভাগ্যটাই খা’রাপ। আ'পনার মতন রোমা'ন্টিক মা'নুষ পেলাম না!

কিছু কিছু পু’রুষ আ'ছে, যারা এভাবে ক'লিগ, ভাবি, ব’ন্ধুর বউদের প্রশংসাবাক্যে প্রা’ণমন ভিজিয়ে ফে’লে । আ'পাত'দৃষ্টিতে এগুলো ‘জাস্ট প্রশংসাবাক্য’। কিন্তু এর গ’ভীরে যে কত বড় লাম্পট্য আর অসৎ কা'মনা লুকিয়ে আ'ছে, খেয়াল না করলে বোঝার উপায় নেই।